বৃহস্পতিবার, ১৮ এপ্রিল ২০২৪

সাপ্তাহিক নবযুগ :: Weekly Nobojug

উত্তপ্ত পরিস্থিতি টেক্সাস সীমান্তে

যুুক্তরাষ্ট্রে কাঁটাতারের বেড়া ভেঙে ঢুকছে অভিবাসীরা

নবযুগ ডেস্ক 

প্রকাশিত: ০৩:৫৫, ২৩ মার্চ ২০২৪

যুুক্তরাষ্ট্রে কাঁটাতারের বেড়া ভেঙে ঢুকছে অভিবাসীরা

প্রতীকী ছবি

কাঁটাতারের বেড়া ভেঙে এবং সেখানে থাকা প্রহরীদের কুপোকাত করে শতাধিক অভিবাসী গতকাল বৃহস্পতিবার আন্তর্জাতিক সীমান্ত দিয়ে যুক্তরাষ্ট্রে প্রবেশের চেষ্টা চালিয়েছে।

যুক্তরাষ্ট্রে প্রবেশের আশায় ইতোপূর্বে টেক্সাস সীমান্তের কাছে প্রায় ৬০০ অভিবাসী জড়ো হয়েছিল। তাদের একটি অংশ বেপরোয়া এই চেষ্টা করে।

জানা গেছে, টেক্সাস ন্যাশনাল গার্ড তাদেরকে ছোট ছোট গ্রুপে ভাগ করার চেষ্টা করছিল। কিন্তু কয়েকজন নারী ও শিশুকে গার্ডম্যানরা প্রাপ্তবয়স্ক পুরুষদের থেকে আলাদা করে ফেললে পরিস্থিতি উত্তপ্ত হতে থাকে।

মিডিয়ার হাতে আসা ভিডিওতে দেখা যায়, প্রধানত সিঙ্গেল পুরুষদের নিয়ে গঠিত একদল অভিবাসী ওই সময় টেক্সাস বাহিনীর দিকে ছুটে যায়।

হুডি, গ্লাবস ও শীতের জ্যাকেট পরিহিত একদল পুরুষ কাঁটাতারের বেড়া তুলে ফেলতে থাকে। এসময় পাঁচজন প্রহরী তাদের প্রতিরোধ করার চেষ্টা চালায়। কিন্তু অভিবাসীর সংখ্যা অনেক বেশি হওয়ায় প্রহরীদের পক্ষে তাদের প্রতিরোধ করা কঠিন হয়ে পড়ে। পরিস্থিতি ক্রমেই আরো বিশৃঙ্খল হয়ে পড়ে। পরে অভিবাসীদের সাথে আরো লোক যোগ দিয়ে প্রহরীদের সেখান থেকে সরিয়ে দেয়। এরপর তারা সীমান্ত ফটকের কাছে এসে জড়ো হয়, ফটকের অপর দিকে থাকা প্রহরীদের লক্ষ্য করে স্লোগান দেয়।

এসময় এক ব্যক্তিকে চিৎকার করে বলতে শোনা যায়, ‘আমাদের সাথে নারী ও শিশুরা আছে। আমরা ক্ষুধার্ত।’
অপর এক ব্যক্তি জোরে জোরে বলে, ‘সাহায্য করুন। আমাদের সাথে শিশু আছে।’

একটি সূত্র জানায়, পরে কয়েকজনকে গ্রেফতার করা হয়। আরো কয়েকজনকে নিয়ম অনুসরণ করে যুক্তরাষ্ট্রের ভেতরে নিয়ে আসা হয়।
বর্ডার পেট্রোল অ্যাজেন্ট অরল্যান্ডো ম্যারেরো মিডিয়াকে বলেন, ‘আমাদের সামনে আজ যেসব অভিবাসী এসেছিল, তাদেরকে প্রসেসিং সেন্টারে নিয়ে আসা হবে।’

ফক্স নিউজের সাংবাদিক বিল মেলুগিন বলেন, এক সৈন্যকে আঘাত করার জন্য একজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। তিনি বলেন, সম্পত্তির ক্ষতি এবং আক্রমণের জন্য আরো মামলা করা হতে পারে।

শেয়ার করুন: